উবার, পাঠাওসহ অ্যাপস ভিত্তিক পরিবহণসেবাকে বৈধতা দিচ্ছে সরকার।

উবার, পাঠাওসহ অ্যাপস ভিত্তিক পরিবহণসেবাকে বৈধতা দিচ্ছে সরকার।

58
SHARE

কিউ২৪ নিউজ ডেস্ক : উবার, পাঠাওসহ অ্যাপস ভিত্তিক পরিবহণসেবাকে বৈধতা দিচ্ছে সরকার। বিআরটিএ থেকে সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান ও মোটরযানের তালিকাভূক্তির সনদ নেয়ার বাধ্যবাধকতা রেখে এ সংক্রান্ত একটি নীতিমালায় অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রীসভা। এদিকে, এসব পরিবহন সেবায় বাড়তি ভাড়া যাতে গুণতে না হয় সেদিকে দৃষ্টি রাখার তাগিদ দিয়েছেন যাত্রী ও বিশেষজ্ঞরা।

রাজধানীতে গণপরিবহনের ভোগান্তি এড়িয়ে স্বস্তিতে গন্তব্যে পৌঁছানোটা বরাবরই দূরূহ। এই সংকট যখন ভয়াবহ তখনই চালু হয় বিশ্বখ্যাত অ্যাপসভিত্তিক পরিবহন সেবা উবার। ঝামেলা এড়িয়ে নির্দিষ্ট গন্তব্যে পৌঁছে দেয়ার ক্ষেত্রে যেখানে ভাড়া নিয়ে নেই দর কষাকষি।

ফলে ২০১৭ এর জুনে বাংলাদেশে চালু হওয়া উবার এর পাশাপাশি জনপ্রিয়তা পায় অ্যাপসভিত্তিক দেশীয় কিছু পরিবহন সেবা। এতদিন অবৈধভাবে চলাচল করলেও অবশেষে এসব পরিবহণ নীতিমালার আওতায় আনার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে সোমবার ‘রাইড শেয়ারিং সার্ভিস নীতিমালা ২০১৭ এর খসড়ায় অনুমোদন দেয়া হয়।

যত্রতত্র যাত্রী ওঠানামায় নিষেধাজ্ঞা দিয়ে এই নীতিমালায় বলা হয়, ট্যাক্সিক্যাব সার্ভিস গাইড লাইন ২০১০ অনুযায়ী ভাড়ার হার নির্ধারণ করতে হবে রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠানকে।

এদিকে, নতুন এই নীতিমালার কারনে এসব সেবার ক্ষেত্রে যাতে বাড়তি ভাড়া গুণতে না হয় সেদিকে দৃষ্টি রাখার কথা বলেছেন যাত্রী, চালক ও বিশেষজ্ঞরা।

নতুন এই নীতিমালা বাস্তবায়ন হলে অ্যাপসভিত্তিক পরিবহণ সেবা আরো বেশী নিরাপদ ও যাত্রীবান্ধব হবে বলে মনে করছেন তারা।