দুই ব্রোকারকে ৪০ লাখ টাকা জরিমানা

দুই ব্রোকারকে ৪০ লাখ টাকা জরিমানা

118
SHARE

আইন ভঙ্গের অপরাধে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) তালিকাভুক্ত দুই ব্রোকারেজ হাউজকে মোট ৪০ লাখ টাকা জরিমানা করেছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।

রাজধানীর শেরেবাংলানগরে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থাটির নিয়মিত কমিশন সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

বিনিয়োগকারীদের পক্ষে শেয়ার লেনদেনকারী প্রতিষ্ঠান দুটি হলো- সাদ সিকিউরিটিজ ও এএনএফ ম্যানেজম্যান্ট লিমিটেড।

দুটি প্রতিষ্ঠানেই সমন্বিত গ্রাহক হিসাবে ঘাটতির মাধ্যমে সিকিউরিটিজ আইন লঙ্ঘন করা হয়েছে।

এর মধ্যে সাদ সিকিউরিটিজ পরিচালক ও তাদের পরিবারের সদস্যদের ঋণ দিয়েছে এবং পর্যাপ্ত ব্যালান্স না থাকার পরও টাকা তুলেছে। এছাড়া নগদ হিসাবে ঋণ দিয়ে মার্জিন রুলস ভঙ্গ ও ৫ লাখ টাকার উপরে নগদ লেনদেনের মাধ্যমে সিকিউরিটিজ আইন ভঙ্গ করেছে।

অন্যদিকে এএনএফ ম্যানেজম্যান্ট ডিলার, ব্যবস্থাপনা পরিচালক, সিইও, অনুমোদিত প্রতিনিধি এবং তাদের পরিবারের সদস্যদের নামে হিসাব পরিচালনা করেছে এবং নগদ হিসাবে ঋণ দিয়েছে। ‘জেড’ ক্যাটাগরির শেয়ারে ঋণ দিয়ে মার্জিন রুলস ভঙ্গ করেছে। এছাড়া বেক অফিস স্টক রিপোর্ট ও ডিপি হোল্ডিং রিপোর্টের মধ্যে গরমিল রেখেও সিকিউরিটিজ আইন লঙ্ঘন করেছে।

এসব আইন ভঙ্গের কারণে সাদ সিকিউরিটিজ ও এএনএফ ম্যানেজম্যান্টের প্রত্যেককে ২০ লাখ টাকা করে জরিমানা করেছে বিএসইসি।

দুই মার্চেন্ট ব্যাংককে হুঁশিয়ারি

এছাড়া সভায় আইন অনুযায়ী যথাযথ মূলধন অর্জন করতে না পারায় মার্চেন্ট ব্যাংক এনডিবি ক্যাপিটাল ও কসমোপলিটান ফাইন্যান্সকে সতর্ক করেছে বিএসইসি।

পরিশোধিত মূলধন ২৫ কোটি টাকায় উন্নীত করতে ব্যর্থ হওয়ার মাধ্যমে কমিশনের আইন ভঙ্গ করেছে এই মার্চেন্ট ব্যাংক।

আইন ভঙ্গের অপরাধে কমিশন সভায় মার্চেন্ট ব্যাংক দুটিকে সতর্ক ইস্যু করার সিদ্ধান্ত নেয় বিএসইসি।